রবিবার, ২৭ মে ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম
নগরীর অভিজাত শপ-রেস্টুরেন্টে ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানা  » «   রাশিয়ার মিসাইলেই বিধ্বস্ত হয় মালেশিয়ার বিমান: তদন্ত দল  » «   রাজস্থানকে বিদায় করে কোয়ালিফায়ারে কলকাতা  » «   সুনামগঞ্জে বজ্রপাতে কৃষক নিহত  » «   নগরীতে বাসের ধাক্কায় ব্যবসায়ী নিহত  » «   ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ২ কোটি টাকার বিদেশি মুদ্রাসহ যাত্রী আটক  » «   ধীরে ধীরে ইসলাম ধর্মের প্রতি আমি দুর্বল হয়ে যাচ্ছিলাম  » «   অভিনেত্রী তাজিন আহমেদ আর নেই  » «   খাবারে ভেজাল মেশানো বড় পাপ : বিভাগীয় কমিশনার  » «   চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালঃ রিয়ালের বড় বাধা সালাহ!  » «   খুলনায় নির্বাচন কমিশন ব্যর্থ: সুজন  » «   লোকবল আর প্রয়োজনীয় সরঞ্জামের অভাবে ধ্বংস হচ্ছে লাউয়াছড়া বন ও বন্যপ্রাণী  » «   গোয়াইনঘাটে ২০ দিন ধরে যুবক নিখোঁজ  » «   ১৪১ বাংলাদেশি যাত্রী নিয়ে সৌদি বিমানের জরুরি অবতরণ  » «   জেরুসালেমের ব্যাপারে বিন্দুমাত্র ছাড় দেবে না তুরস্ক: এরদোগান  » «  

স্টিফেন হকিং মারা গেছেন

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ
পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং মারা গেছেন। পরিবারের তরফ থেকে ৭৬ বছর বয়সী এই বিজ্ঞানীর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। চলতি বছরই ৭৬তম জন্মদিন পালন করেছিলেন এই বিজ্ঞানী। বিরল ‘মোটর নিউরন’ রোগে আক্রান্ত ছিলেন তিনি। পৃথিবীর অস্তিত্ব ও বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে বিভিন্ন তথ্য দিয়েছেন এই পদার্থ বিজ্ঞানী। খবর বিবিসি।
১৯৮৮ সালে প্রকাশিত হয়েছিল তার বই ‘আ ব্রিফ হিস্ট্রি অফ টাইম। মোটর নিউরন রোগে আক্রান্ত একজন ব্যক্তি সাধারণত রোগ ধরা পড়ার চার বছরের বেশি বাঁচেন না। হকিংয়ের এই রোগ ধরা পড়েছিল ১৯৬৩ সালে। অর্থাৎ তারপরও ৫৫ বছর বেঁচে থাকা মিরাকলের চেয়ে কম কিছু নয়। তবে আরও আশ্চর্য তার গবেষণা।
বিরল এই রোগে আক্রান্ত হয়েও যেভাবে তিনি বিশ্বের সৃষ্টি সন্ধানে নিয়োজিত ছিলেন তা পুরো বিশ্বের কাছেই বড় চমক। ব্রিটিশ এই বিজ্ঞানী কৃষ্ণ গহ্বর এবং আপেক্ষিকতা তত্ত্ব নিয়ে তার কাজের জন্য বিশ্বজুড়ে পরিচিত।
হকিং এর তিন সন্তান লুসি, রবার্ট এবং টিম বাবার মৃত্যুর খবরে জানিয়েছেন, আমরা দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি যে আমাদের প্রিয় বাবা আজ মারা গেছেন। তিনি শুধু একজন বড় বিজ্ঞানীই ছিলেন না তিনি ছিলেন একজন অসাধারণ মানুষ, যার কাজ বহু বছর বেঁচে থাকবে। শুধু বিজ্ঞানী হিসেবেই নয়, প্রতিবন্ধকতাকে পেরিয়ে কিভাবে সেরা হওয়া যায় তিনি ছিলেন তার অন্যতম উদাহরণ।

সংবাদটি শেয়ার করুন:
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by: